September 22, 2021

Jagobahe24.com

সত্যের সাথে আপোসহীন

মেট্রোরেলের পরীক্ষামূলক যাত্রা

মেট্রোরেলের পরীক্ষামূলক যাত্রা

মেট্রোরেলের পরীক্ষামূলক যাত্রা

স্বপ্নের মেট্রোরেলের আনুষ্ঠানিক ট্রায়াল শুরু হয়েছে। রাজধানীবাসীকে পরীক্ষামূলকভাবে ভায়াডাক্টের (উড়ালপথ) ওপর দিয়ে চালিয়ে দেখানো হয় ট্রেন।

রোববার দুপুর পৌনে ১২টার দিকে এমআরটি-৬ ডিপোতে এ পরীক্ষামূলক পরিচালনা ও পরীক্ষণের উদ্বোধন করেন সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।

এ ‘ট্রায়াল রান’ উত্তরার দিয়াবাড়ী থেকে মিরপুর পর্যন্ত ঘণ্টায় ২৫ কিলোমিটার গতিতে করা হয়। সংশ্লিষ্ট সূত্র জানিয়েছে, এ পরীক্ষামূলক চলাচলে চালকের আসনে ছিলেন একজন জাপানি নাগরিক।  

এর আগে, ১১ মে উত্তরার দিয়াবাড়ীতে মেট্রোরেলের ডিপোর ভেতর প্রথমবারের মতো গণমাধ্যমের সামনে এ বৈদ্যুতিক ট্রেন চালিয়ে দেখানো হয়। আর গত শুক্রবার উত্তরা দিয়াবাড়ী ডিপো থেকে মিরপুর ১২ নম্বর স্টেশন পর্যন্ত ভায়াডাক্টের ওপর দিয়ে প্রথমবারের মতো মেট্রোরেল চালিয়ে দেখানো হয়, যা ছিল আজকের ট্রায়ালের প্রস্তুতি।

এদিকে বর্তমানে ঢাকার উত্তরা দিয়াবাড়ী মেট্রোরেলের ডিপোতে দুই সেটের মোট ১২টি কোচ পৌঁছেছে, যার প্রথম সেটের ছয়টি ২১ এপ্রিল এবং দ্বিতীয় সেটের আরো ছয়টি কোচ ১ জুন ঢাকা পৌঁছায়।

সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে, মেট্রোরেলে প্রতিটি সেটে থাকবে চারটি যাত্রীবাহী কোচ, দুই দিকে দুটো ইঞ্জিন। ঢাকা ম্যাস র‌্যাপিড ট্রানজিট কর্তৃপক্ষ বলছে, প্রতি বর্গমিটারে আটজনের হিসাবে ব্যস্ততম সময়ে প্রায় ১৭০০ যাত্রী চলাচল করতে পারবেন। ডিএমটিসিএলের অধীনে ঢাকা ও আশপাশে মেট্রোরেলের ছয়টি লাইন নির্মাণের উদ্যোগ নেয়া হয়েছে।

মেট্রোরেল প্রকল্পে প্রথমটি লাইন-৬। এ প্রকল্পে ব্যয় ধরা হয়েছে প্রায় ২২ হাজার কোটি টাকা। জাপানের কাওয়াসাকি-মিতসুবিশি কনসোর্টিয়ামকে ২৪ সেট ট্রেন নির্মাণের দায়িত্ব দেওয়া হয়। দুই পাশে দুটি ইঞ্জিন আর চারটি কোচের সমন্বয়ে ট্রেনের সেটগুলো তৈরি হচ্ছে জাপানে।

সম্প্রতি ডিএমটিসিএলের ব্যবস্থাপনা পরিচালক এমএএন সিদ্দিক এক অনুষ্ঠানে বলেন, আমরা আশা করি, ঢাকাবাসী ২০২২ সালের ডিসেম্বর থেকে উত্তরার দিয়াবাড়ি থেকে আগারগাঁও পর্যন্ত মেট্রোরেলের প্রথম ধাপ ব্যবহার করতে পারবেন।