October 20, 2021

Jagobahe24.com

সত্যের সাথে আপোসহীন

স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের অধীনে এনআইডির কার্যক্রম চালু হবে: মুক্তিযুদ্ধ বিষয়কমন্ত্রী

স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের অধীনে এনআইডির কার্যক্রম চালু হবে: মুক্তিযুদ্ধ বিষয়কমন্ত্রী

স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের অধীনে এনআইডির কার্যক্রম চালু হবে: মুক্তিযুদ্ধ বিষয়কমন্ত্রী

আগামী দুই মাসের মধ্যে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের অধীনে জাতীয় পরিচয়পত্রের (এনআইডি) কার্যক্রম চালু হবে জানিয়েছেন মুক্তিযুদ্ধ বিষয়কমন্ত্রী আ. ক. ম মোজাম্মেল হক।

বুধবার স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে আইনশৃঙ্খলা সংক্রান্ত মন্ত্রিপরিষদ কমিটির সভা শেষে এ তথ্য জানান তিনি। আইনশৃঙ্খলা সংক্রান্ত মন্ত্রিপরিষদ কমিটির সভাপতি মুক্তিযুদ্ধ বিষয়কমন্ত্রী আ. ক. মোজাম্মেল হকের সভাপতিত্বে এ সভা হয়।

মোজাম্মেল হক বলেন, এনআইডি বিষয়ে অনেকে অনেক কিছু কথা বলছেন, এনআইডির কার্যক্রম স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের অধীনে থাকছে। এনআইডি আবেদনের ৩০ কার্য দিবসের মধ্যে সিদ্ধান্ত দিতে হবে। না হলে কেন দেয়া যাচ্ছে না এর ব্যাখ্যা দিতে হবে। অনেকেই ভুগছেন এ ব্যাপারে।

মন্ত্রী বলেন, নির্বাচন কমিশনের (ইসি) কাজ ভোটার তালিকা ও নির্বাচন করা। কোনো দেশে ইসি এনআইডি করে না।

বৈঠকে হেফাজতে ইসলাম নিয়ে আলোচনা হয়েছে উল্লেখ মন্ত্রী বলেন, তাদের খুবই নগণ্য সংখ্যক নেতা দেশকে অস্থিতিশীল করতে চেয়েছে। সুনির্দিষ্ট অপরাধের ভিত্তিতে তাদের গ্রেফতার করা হয়েছে। আলেম-ওলামাদের বিরুদ্ধে নয় অপরাধের ভিত্তিতে কিছু নেতাকে গ্রেফতার করা হয়েছে। কেউ যেন হয়রানি না হয় সেজন্য আইনশৃঙ্খলা বাহিনীকে নির্দেশ দেয়া হয়েছে।

মোজাম্মেল হক বলেন, আমি মন্ত্রী, এমপি যেই হই অপরাধ করলে বিচার হবে। কোনো দল বা সম্প্রদায়ের বিরুদ্ধে বিচার করা হচ্ছে না।

কিছু বিদেশি নাগরিক আছে যাদের ভিসার মেয়াদ শেষ তারা দেশে অবস্থান করছে উল্লেখ করে মন্ত্রী বলেন, গোয়েন্দা তথ্যে দেখা যায় এদের অনেকে অপরাধের সঙ্গে জড়িত। তাদের নিজ নিজ দেশে পাঠিয়ে দেয়া হবে। প্রয়োজনে সরকার টিকেটের ব্যবস্থা করবে।

রোহিঙ্গা প্রসঙ্গে মন্ত্রী বলেন, রোহিঙ্গা ক্যাম্পে সুবিধা ও ৫ হাজার টাকা দাবি করে গত কয়েকদিনে কিছু বিক্ষোভ হয়েছে। পৃথিবীর কোনো দেশেই শরণার্থীরা এই সুবিধা পায় না। কারো প্ররোচনায় তারা এটা করছে। ভাসানচরে কেউ পর্যটনের জন্য বা অনুমতি ছাড়া যেতে পারবে না। ক্যাম্পে যারা মাদকের সঙ্গে জড়িতদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে।

গুগল ও আমাজন করের আওতায় এসেছে জানিয়ে তিনি বলেন, এর বাইরে যারা আছে তাদেরকেও করের আওতায় আনা হবে। অন্যান্য সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমকেও এভাবে জবাবদিহিতার আওতায় আসতে হবে। রেজিস্ট্রেশন ব্যবস্থা থাকলে, কেউ অপরাধ করলে তাকে ধরা যাবে। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে যে লেনদেন হয়, তা বৈধভাবে হয় নাকি অবৈধভাবে হয় এর জন্য প্রতিবেদন দিতে বলা হয়েছে। ইউটিউব, ফেসবুকের অফিস বাংলাদেশে থাকতে হবে। এ বিষয়ে কঠোর অবস্থানে বাংলাদেশ।

মাদক নিরাময় কেন্দ্রে অত্যাচার করা হয় অভিযোগ এসেছে জানিয়ে তিনি বলেন, এমন কেন্দ্র কয়টি রয়েছে, নিয়মমাফিক চলছে কিনা সে বিষয়ে প্রতিবেদন দিতে বলা হয়েছে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীকে। 

এলএসডি নিয়ে তিনি বলেন, এলএসডিসহ নতুন মাদক নিয়ে ১৫টি গ্রুপ এই ব্যবসায় জড়িত। এর মধ্যে দুটি গ্রুপকে আইনের আওতায় আনা হয়েছে। বাকিদেরও ধরা হবে।

কোরবানির চামড়ার প্রসঙ্গে মন্ত্রী বলেন, কোরবানির চামড়ার দাম নির্ধারণ ও পাচার যেন না হয় সেজন্য সীমান্তে আরো কঠোরভাবে নিয়ন্ত্রণের নির্দেশ দেয়া হয়েছে।

তিনি আরো উল্লেখ করেন, বঙ্গবন্ধুর চার খুনির খেতাব বাতিলের সিদ্ধান্ত হয়েছে। গেজেট দ্রুত হবে।

জিয়াউর রহমানের বিষয়ে জানতে চাইলে তিনি বলেন, জিয়ার খেতাব নিয়ে একটা উপ-কমিটি করা হয়েছে। বঙ্গবন্ধুর খুনের সঙ্গে সে জড়িত কি-না তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে। তার বিরুদ্ধে আদালতে প্রমাণ সাপেক্ষে তথ্য উপাত্তের ভিত্তিতে ব্যবস্থা নেয়া হবে। অনেকের মন্তব্য পেয়েছি। আমরা কোনো প্রতিবেদন এখনো উপ-কিমিটির কাছ থেকে পাইনি।