June 18, 2021

Jagobahe24.com news portal

Real time news update

ঝিনাইদহে লকডাউনেও ঢাকায় যেতে চড়া মুল্যে বিক্রয় হচ্ছে মাইক্রোবাসের টিকিট

ঝিনাইদহে লকডাউনেও ঢাকায় যেতে চড়া মুল্যে বিক্রয় হচ্ছে মাইক্রোবাসের টিকিট

ঝিনাইদহে লকডাউনেও ঢাকায় যেতে চড়া মুল্যে বিক্রয় হচ্ছে মাইক্রোবাসের টিকিট

ঝিনাইদহ-
দেশে করোনা ভাইরাস নিয়ন্ত্রণে কয়েক ধাপে চলছে সর্বাত্মক লকডাউন। পরিবার-পরিজনের সাথে ঈদ করতে দুর-দুরান্ত থেকে ছুটে এসেছেন। এখন কর্মস্থলে ফেরার চেষ্টা। কিন্তু সর্বাত্মক লকডাউনে চলছে না দুরপাল্লার বাস। প্রতিদিন সকাল থেকে রাত ১১ টা পর্যন্ত মাইক্রোবাস যাত্রী নিয়ে ঢাকার ঊদ্দেশ্যে ছেড়ে গেলে ও স্থানীয় প্রশাসনের এ বিষয়ে কোন মাথা ব্যাথা নেই। সে কারণে মাইক্রোবাসের টিকিট বেশি দামে কিনে যেতে হচ্ছে ঢাকাতে এদিকে সর্বাত্মক লকডাউনে সবচেয়ে বেশি বিপদে পড়েছে ঢাকাগামী মাইক্রোবাসের মালিক ও শ্রমিকরা। গত ১ মাস যাবত তাদের কোন উপার্জনের ব্যবস্থা নেই। তাই বাধ্য হয়ে কাউন্টারের সামনে মাইক্রোবাস রেখে টিকিট বিক্রি করছেন তারা। বৃহস্পতিবার ঝিনাইদহ বাস টার্মিনালে গিয়ে দেখা গেছে, ১০ সিটের মাইক্রোবাসের টিকিট জনপ্রতি নেওয়া হচ্ছে এক হাজার থেকে পনের’শ টাকা। আর ১৮ সিটের মাইক্রোবাসের টিকিট নেওয়া হচ্ছে তের’শ থেকে আঠার’শ টাকা। খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, টার্মিনাল শ্রমিকদের করোনাকালীন কোনো আয়-উপার্জন নেই। দুরপাল্লার গাড়ি বন্ধ থাকায় এ ব্যবস্থা করতে হয়েছে। পরিবার পরিজন নিয়ে অনেক কষ্টে আছে। ঢাকাগামী মতলেব উদ্দিন নামক এক যাত্রী বলেন, ঈদ করতে তিনি বাড়িতে এসেছেন। এখন ঢাকায় কর্মস্থলে ফিরবেন। বার’শ টাকা দিয়ে একটি টিকিট কেটে ঢাকা যেতে হচ্ছে। বাস চললে এত বেশি টাকা দিয়ে টিকিট কিনতে হতো না। কোন উপায় না পেয়ে অনেক বেশি টাকা দিয়ে ঢাকায় যেতে হচ্ছে। ঢাকাগামী মাইক্রোবাসের মালিকসহ শ্রমিকরা বলেন, দুই ঈদেই ঢাকাগামী পরিবহন গুলোর ভালো ব্যবসা হয়। সেইসাথে আমাদেরও ভালো উপার্জন হয়। কিন্তু গত ঈদেও কোন উপার্জন নেই। এই ঈদেও গাড়ি বন্ধ। পরিবার-পরিজন নিয়ে খুব কষ্টে ঈদ কেটেছে। উপায় না পেয়ে মাইক্রোবাসের টিকিট বিক্রি করছি।