September 21, 2021

Jagobahe24.com

সত্যের সাথে আপোসহীন

টাকার জন্য যুবলীগ নেতার মারধর, অপমানে ব্যবসায়ীর আত্মহত্যা

টাকার জন্য যুবলীগ নেতার মারধর, অপমানে ব্যবসায়ীর আত্মহত্যা

টাকার জন্য যুবলীগ নেতার মারধর, অপমানে ব্যবসায়ীর আত্মহত্যা

জে, ইতি ঠাকুরগাঁও প্রতিনিধিঃ
মাত্র ১ হাজার টাকার জন্য বাজারে প্রকাশ্যে আব্দুল গফুর (৪০) নামে এক মাছ ব্যবসায়ীকে পিটিয়েছে যুবলীগ নেতা। মারপিটের ভিডিও ধারণ করেছে মোবাইলে। অপমান সহ্য করতে না পেরে গ্যাস ট্যাবলেট খেয়ে নিজের প্রাণ দিয়েছেন এক মাছ ব্যবসায়ী। মৃত্যুর আগে ভিডিওতে জানিয়ে গেছেন তার মৃত্যুর কারণ।
ঠাকুরগাঁওয়ের বালিয়াডাঙ্গী উপজেলার দুওসুও ইউনিয়নের সনগাঁও ফটিয়াপড়া গ্রামে বৃহস্পতিবার বিকাল ৩টায় মাছ ব্যবসায়ী মারা যান। এর আগে সকালবেলা স্থানীয় পৌকানপুর বাজারে তাকে মারধর করেন স্থানীয় ওয়ার্ড যুবলীগ নেতা জমির উদ্দীন। এরপরে তিনি ঔষধের দোকান থেকে গ্যাস টেবলেট খান। মৃত আব্দুল গফুর ওই গ্রামের নেনকু মোহাম্মদের ছেলে। তিনি পেশায় একজন মাছ ব্যবসায়ী।
আব্দুল গফুরের স্ত্রী রোজিনা বেগম জানান, আজ সকালে পাশের গ্রামের পয়জার আলীর ছেলে যুবলীগ নেতা জমির উদ্দীন দুবার টাকা চাইতে বাড়ীতে আসেন। আমার স্বামীকে না পেয়ে মোবাইলে যোগাযোগের চেষ্টা করে। পরে বাড়ী থেকে রেগে বেরিয়ে যান। এরপরে স্থানীয় বাজারে দেখা হলে প্রকাশ্যে বাজারের লোকজনের সামনে তাকে মারপিট করে।
প্রতিবেশী নাসিরুল ইসলাম জানান, আমরা গফুরকে বাঁচানোর জন্য বালিয়াডাঙ্গী হাসপাতাল ও ঠাকুরগাঁও আধুনিক সদর হাসপাতালে নিয়ে গেছিলাম। ডাক্তার বলেছে গ্যাস টেবলেট খাওয়া রোগীকে বাচানো সম্ভব নয়। পরে আমরা তাকে বাড়ীতে নিয়ে আসলে দুপুর ৩টায় মারা যায়। হাসপাতাল থেকে ফেরত নিয়ে আসার পর মৃত্যুর আগে আব্দুল গফুর একটি ভিডিওতে বলে গেছেন, টাকার জন্য প্রকাশ্যে গালিগালাজ ও মারপিটের অপমান সহ্য করতে না পেরে আমি গ্যাস টেবলেট খেয়ে আত্মহত্যা করেছি। মাত্র ১ হাজার টাকার জন্য প্রকাশ্যে মারপিট ও আত্মহননে বাধ্য করার দায়ে যুবলীগ নেতার দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানিয়েছে মৃত ব্যবসায়ীর পরিবার ও প্রতিবেশীরা।
জমির উদ্দীনের বাড়ীতে গিয়ে তার দেখা পাওয়া যায়নি। মুঠোফোনে একাধিকবার চেষ্টা করেও তিনি ফোন রিসিভ করেননি।
বালিয়াডাঙ্গী থানার ওসি হাবিবুল হক প্রধান জানান, আমাদের মোবাইলে ঘটনার বিষয়ে জানিয়েছে। ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানোর ব্যবস্থা চলছে।