September 22, 2021

Jagobahe24.com

সত্যের সাথে আপোসহীন

দুই ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানের লাইসেন্স স্থগিত করল গাইবান্ধা পৌরসভা

দুই ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানের লাইসেন্স স্থগিত করল গাইবান্ধা পৌরসভা

দুই ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানের লাইসেন্স স্থগিত করল গাইবান্ধা পৌরসভা

গাইবান্ধা ঃ গাইবান্ধা পৌরসভার তালিকাভুক্ত দুই ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানের লাইসেন্স স্থগিত করেছে গাইবান্ধা পৌরসভা। একই সঙ্গে কেন তাদের লাইসেন্স কালো তালিকাভুক্ত করা হবে না তা জানতে চেয়ে পত্র পাঠানো হয়েছে তাদের বরাবর।

বৃহস্পতিবার বিকালে গাইবান্ধা পৌর মেয়র মতলুবর রহমান লাইসেন্স স্থগিতের বিষয়টি নিশ্চিত করেন।এর আগে মঙ্গলবার প্রতারণা, কাজে অনিয়ম-দুর্নীতি ও বুয়েট ল্যাব টেস্টের স্বাক্ষর জালিয়াতির দায়ে এই দুই প্রতিষ্ঠানের লাইসেন্স স্থগিত করা হয়।

ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানগুলো শহরের স্টেশন রোডের সরদার মো. শাহীদ হাসান লোটনের প্রতিষ্ঠান মেসার্স জোহা এ্যান্ড সন্স ও মহুরিপাড়ার খান মো. সাইদ হোসেন জসিমের মেসার্স নুহা ট্রেডাস।

পৌর মেয়রের স্বাক্ষরিত চিঠিতে উল্লেখ করা হয়, পৌরসভায় রক্ষিত নথিপত্র পর্যালোচনা করে দেখা গেছে এই দুই প্রতিষ্ঠান গাইবান্ধা পৌরসভার যেসব উন্নয়নমূলক কাজ বাস্তবায়ন করেছে সেসব কাজের জন্য ব্যবহৃত নির্মাণ সামগ্রীর ল্যাবরেটরি রিপোর্ট সম্পূর্ণ ভুয়া, বানোয়াট ও ভিত্তিহীন। তারা ল্যাবরেটরি পরীক্ষার ভুয়া রিপোর্ট দাখিল করে বছরের পর বছর পৌরসভা তথা সরকারের সাথে প্রতারণা করে মোটা অংকের টাকা হাতিয়ে নিয়েছে।

মেসার্স জোহা অ্যান্ড সন্স পৌরসভার এলজিএসপি-৩, আওতাধীন ২০১৯-২০ অর্থ বছরে ডেভিড কোম্পানিপাড়ার গোলাম মোস্তফার বাড়ি হতে মমিনুুলের বাড়ি পর্যন্ত ড্রেন নির্মাণে ব্যবহৃত নির্মাণসামগ্রী বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয় (বুয়েট)-এর ল্যাব টেস্টের স্বাক্ষর জালিয়াতির মাধ্যমে পৌরসভায় দাখিল করে নিম্নমানের কাজ সম্পাদন করেছে। অন্যদিকে মেসার্স নূহা অ্যান্ড সন্স অস্তিত্বহীন কাজ ও ভুয়া প্যাকেজ দাখিল করে মোটা অংকের টাকা হাতিয়ে নিয়েছে। এছাড়াও ২০১৮-১৯ অর্থবছরে সরকারপাড়া আঞ্জুর দোকান হতে ভায়া নুরুর দোকান হয়ে রঞ্জু মিয়ার বাড়ি পর্যন্ত ড্রেন ও সিসি রাস্তা ও মুন্সিপাড়ার সাজু মিয়ার বাড়ি হতে ইমরান মিয়ার বাড়ি পর্যন্ত ড্রেন ও সিসি রাস্তায় ব্যবহৃত নির্মাণ সামগ্রী বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয় (বুয়েট)-এর ল্যাব টেস্টের স্বাক্ষর জালিয়াতির মাধ্যমে পৌরসভায় দাখিল করে নিম্নমানের কাজ সম্পাদন করেছে।

এই দুই প্রতিষ্ঠান ঠিকাদারি লাইসেন্সের প্রদত্ত শর্তাবলী ভঙ্গ করায় পৌর কর্তৃপক্ষ তাদের লাইসেন্স নবায়ন স্থগিত করেছে।