October 21, 2021

Jagobahe24.com

সত্যের সাথে আপোসহীন

রমেকে দুই শিক্ষার্থীকে মারধরের প্রতিবাদে বেরোবিতে মানববন্ধন

রমেকে দুই শিক্ষার্থীকে মারধরের প্রতিবাদে বেরোবিতে মানববন্ধন

রমেকে দুই শিক্ষার্থীকে মারধরের প্রতিবাদে বেরোবিতে মানববন্ধন

বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের (বেরোবি) সমাজ বিজ্ঞান বিভাগের শিক্ষার্থী রিয়াজুল করিম (রিয়াদ) ও রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের মার্কেটিং বিভাগের শিক্ষার্থী রাশেদ করিমকে (তার ছোট ভাই) রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে মারধরের ঘটনায় মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়েছে।

শনিবার (১২ জুন) বিকেল সাড়ে ৪টায় বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রধান ফটক সংলগ্ন পার্কের মোড়ে এ মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়। সাধারণ শিক্ষার্থীদের ব্যানারে বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগের নেতাকর্মীসহ বিভিন্ন বিভাগের শিক্ষার্থী এসময় উপস্থিত ছিলেন।

মানববন্ধনে শিক্ষার্থীরা বলেন, যেসময় দেশের প্রধানমন্ত্রী স্বাস্থ্যখাতে উন্নয়নে অগ্রণী ভূমিকা পালন করছেন ঠিক সেসময়ে কিছু স্বার্থপুজারী মানুষ এই উন্নয়নকে দমিয়ে রাখতে চেষ্টা চালাচ্ছে। গতকাল রংপুর মেডিকেলে যে নেক্কারজনক ঘটনা ঘটেছে এটি তারই একটি উদাহরণ। গতকাল চিকিৎসার জন্য আমাদের ভাই মেডিকেল গিয়েছিল নাকি কষাইখানায় গিয়েছিল তা আমাদের জানা নেই। যে মেডিকেলে আমরা চিকিৎসা নিয়ে সুস্থ হওয়ার জন্য যাই কিন্তু সেই মেডিকেলে গিয়ে আমাকে মার খেয়ে আসতে হয় এরচেয়ে দুঃখজনক আর কিছুই হতে পারে না। গতকাল এই ঘটনার পরপরই আমরা অনেকেই গিয়েছিলাম আমরা আমাদের সাধ্যের মধ্যে ব্যবস্থা নিয়েছি। কিন্তু এ ব্যাপারে প্রশাসন কী ব্যবস্থা নিয়েছে তা জানতে চাই। শুধু সু-চিকিৎসা দিয়েই হবে না। এই বিষয়ে জড়িতদের আমরা উচিৎ শাস্তির দাবি করছি। 

এসময় তারা আরো বলেন, যতক্ষণ পর্যন্ত নিশ্চিত শাস্তির আওতায় আনা হবে না ততক্ষণ পর্যন্ত বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের আট হাজার শিক্ষার্থী থেমে থাকবে না। প্রয়োজন হলে এই শিক্ষার্থীরা রাস্তা অবরোধ করবে, মেডিকেল অবরোধ করবে, দরকার হলে কমিশনার অফিস ঘেরাও করবে। 
এসময় তারা রংপুর মেডিকেল কলেজকে ঘাতক দালালদের হাত থেকে রক্ষা করে সাধারণ মানুষের চিকিৎসা সেবা নিশ্চিত করতে অনুরোধ জানান।

বিশ্ববিদ্যালয়ের গণযোগাযোগ ও সাংবাদিকতা বিভাগের শিক্ষার্থী গোলাম মাহমুদের সঞ্চালনায় এসময় বক্তব্য  রাখেন শাখা ছাত্রলীগের সভাপতি তুষার কিবরিয়া, বঙ্গবন্ধু হল সভাপতি পোমেল বড়ুয়া, ছাত্রলীগ নেতা মারুফ ভুঁইয়া, স্টুডেন্ট রাইটস ফোরাম সভাপতি মাহমুদ মিলনসহ সাধারণ শিক্ষার্থীরা উপস্থিত ছিলেন। 

এসময় মানবন্ধনে একাত্মতা ঘোষণা করে জড়িতদের শাস্তির দাবি জানিয়েছেন বিশ্ববিদ্যালয়ের গণযোগাযোগ ও সাংবাদিকতা বিভাগের শিক্ষক মাহামুদুল হক।  

গণযোগাযোগ ও সাংবাদিকতা বিভাগের শিক্ষক মাহামুদুল হক বলেন, আজকে আমার শিক্ষার্থীর উপর হামলা হয়েছে কালকে আর একজনের উপর হবে। রংপুর মেডিকেল কলেজে চিকিৎসার নামে চলে প্রহসন, এখানে চিকিৎসার নামে চলে ব্যবসা, এখানে সরকারের কোটি কোটি টাকা লুটপাট করে খাওয়া হয়। যদি রংপুর মেডিকেলে এরকম অবস্থা চলতে থাকে তাহলে শিক্ষার্থীরা পুরো রংপুর শহর অচল করে দেবে।

উল্লেখ্য; গতকাল (১১ জুন) সন্ধা সাড়ে ৭টায় মায়ের চিকিৎসার জন্য অতিরিক্ত টাকা না দেয়ায় রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের স্টাফ ও দালাল ও কতিপয় দালালের হাতে মারধরের শিকার হন বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষার্থী রিয়াজুল ইসলাম রিয়াদ ও তার ছোটভাই রাশেদ করিম।