September 17, 2021

Jagobahe24.com

সত্যের সাথে আপোসহীন

ইয়াসমিন হত্যা দিবস উপলক্ষে সমাজতান্ত্রিক মহিলা ফোরামের মানববন্ধন ও স্মারকলিপি প্রদান

ইয়াসমিন হত্যা দিবস উপলক্ষে সমাজতান্ত্রিক মহিলা ফোরামের মানববন্ধন ও স্মারকলিপি প্রদান

ইয়াসমিন হত্যা দিবস উপলক্ষে সমাজতান্ত্রিক মহিলা ফোরামের মানববন্ধন ও স্মারকলিপি প্রদান

নারী শিশু ধর্ষণ নির্যাতনের বিচার ও নিরাপত্তার দাবী।

গতকাল ২৪ আগস্ট সকাল ১১টায় রংপুর কাচারি বাজারে জেলা সমাজতান্ত্রিক মহিলা ফোরামের আয়োজনে নারী নির্যাতন প্রতিরোধ দিবস উপলক্ষে মানববন্ধন ও সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়। সমাবেশে সংগঠক মৌসুমি আক্তার মৌ এর সঞ্চালনায় সভাপতিত্ব করেন জেলা সংগঠক গোলাপী বেগম। বক্তব্য রাখেন রংপুর জেলা বাসদ সদস্য সচিব কমরেড মমিনুল ইসলাম, মহিলা ফোরামের সংগঠক রিনা মুরমু, রিমা আক্তার, সমাজতান্ত্রিক ছাত্র ফ্রন্টের মহানগর শাখার সভাপতি যুগেশ ত্রিপুরা প্রমুখ। কমরেড আব্দুল কুদ্দুস বলেন, দেড়বছর থেকে করোনা দুর্যোগে সারাদেশ আজ বিপর্যস্ত। মহামারিতে লক্ষ লক্ষ মানুষ কাজ হারিয়ে শ্রমজীবী মানুষের জীবন দুর্বিসহ হয়েছে। একদিকে দেশের শ্রমজীবী গরীব মানুষ তাদের জীবন- জীবিকা নিয়ে যেমন সংকটে পড়েছে, বিপরীতে হাতে গোনা কিছু দুর্নীতিগ্রস্থ মানুষ কোটি টাকার মালিক হয়েছে। তিনি বলেন, অথচ এ সময়কালে ক্ষমতাসীন সরকারের মন্ত্রী-আমলারা লুটপাট-দুর্নীতি-অনিয়মে ব্যস্ত ছিলেন। সে সব অনিয়ম-দুর্নীতি চিত্র কিছু গণমাধ্যমে প্রকাশ করলে সরকার তা স্তদ্ধ করার প্রয়াস হিসেবে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে কার্টুনিস্ট, লেখক, সাংবাদিকদের জেল জুলুম নিপীড়ন করেছে। করোনার সময়ে নারী-শিশু ধর্ষণ, নির্যাতন ও বাল্যবিবাহ বেড়েছে ভয়াবহভাবে। সরকার স্বাস্থ্যখাতে লুটপাট, অনিয়ম-দুর্নীতি সামাল দিতে গিয়ে নারী-শিশু নির্যাতনের বিচার করছে না। তিনি অবিলম্বে এ সকল নির্যাতনের বিচার দাবী করেন। সমাবেশে সভাপতি গোলাপী বেগম বলেন, ১৯৯৫ সালে ২৪ আগস্ট গৃহ-পরিচারিকা ইয়াসমিন হত্যার বিরুদ্ধে গড়ে ওঠা আন্দোলন নারী নির্যাতন বিরোধী আন্দোলনের প্রতীক। তিনি বলেন, দেশ যখন স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী পার করছে তখন দেশের অর্ধেক জনগোষ্ঠী নারীর জীবন চিত্র এখনো পরিবর্তন ঘটেনি। এ দৃশ্যপট পরিবর্তনে নারীর অধিকার মর্যাদা প্রতিষ্ঠা করতে হলে লড়াইয়ের কোন বিকল্প নেই। ইয়াসমিন হত্যা দিবস আমাদেরকে যে কোন কঠিন পরিস্থিতিতেও লড়াই জারি রাখার শিক্ষা দিয়ে গেছে। তিনি সবাইকে এই আন্দোলনে সামিল হওয়ার আহবান জানান। অন্যান্য বক্তারা বলেন, নারী-শিশু নির্যাতন প্রতিরোধ করার জন্য রাষ্ট্রের শিক্ষা ব্যবস্থার আমূল পরিবর্তন করতে হবে, নারী পুরুষের সম্পত্তিতে সমানাধিকার নিশ্চিত করা ও বিচারহীনতার সংস্কৃতি বন্ধ করতে হবে। সমাবেশ শেষে সংগঠনের নেতৃবৃন্দ জেলা প্রশাসকের মাধ্যমে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী নিকট সারাদেশে নারী-শিশু ধর্ষণ-নির্যাতন বন্ধসহ তিন দফা দাবির একটি স্মারকলিপি প্রদান করেন।