August 4, 2021

Jagobahe24.com

সত্যের সাথে আপোসহীন

খানসামায় প্রধানমন্ত্রী'র উপহার স্বপ্নের পাকা ঘর পেল ৪১০ ভূমিহীন ও গৃহহীন পরিবার

খানসামায় প্রধানমন্ত্রী'র উপহার স্বপ্নের পাকা ঘর পেল ৪১০ ভূমিহীন ও গৃহহীন পরিবার

খানসামায় প্রধানমন্ত্রী’র উপহার স্বপ্নের পাকা ঘর পেল ৪১০ ভূমিহীন ও গৃহহীন পরিবার

এস.এম.রকি,খানসামা (দিনাজপুর) প্রতিনিধি: দিনাজপুরের খানসামায় মুজিববর্ষ উপলক্ষে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা’র উপহার ২শতাংশ জমিসহ স্বপ্নের পাকা ঘর পেল ৪১০ ভূমিহীন ও গৃহহীন পরিবার।
শনিবার (২৩ জানুয়ারী) সকালে ভিডিও কনফারেন্সে জমি ও গৃহ প্রদান কার্যক্রম উদ্বোধন করেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।
জমির কাগজপত্র ও গৃহ প্রদানের সনদ পেয়ে আবেগাপ্লুত কন্ঠে সবার মুখেই ছিল শেখের বেটি হাসিনার প্রশংসা ও দোয়া।
উপজেলা প্রশাসন সূত্রে জানা যায়,”আশ্রয়ণের অধিকার-শেখ হাসিনার উপহার” এই স্লোগানে এবং “বাংলাদেশের একজন মানুষও গৃহহীন থাকবে না” প্রধানমন্ত্রীর এই প্রতিশ্রুতি বাস্তবায়নে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের আশ্রয়ণ-২ প্রকল্পের আওতায় উপজেলার ৬টি ইউনিয়নের ৪১০ টি ভূমি ও গৃহহীন পরিবারের জন্য খাস জমিতে গৃহ নির্মাণ কাজ বাস্তবায়ন করেছে উপজেলা প্রশাসন।
এতে প্রত্যেক ভূমিহীন ও গৃহহীন পরিবারকে ২ শতাংশ খাস জমি বন্দোবস্ত প্রদান করে সেই জমির ওপর দুই কক্ষ বিশিষ্ট প্রতিটি গৃহের নির্মাণ ব্যয় ধরা হয়েছে ১ লক্ষ ৭১ হাজার টাকা। প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের নির্ধারিত নকশা অনুযায়ী সবগুলো ঘর তৈরি করা হচ্ছে। এসব গৃহে দুটি সেমি-পাকা ঘর, রান্নাঘর, সংযুক্ত টয়লেট, ইউটিলিটি স্পেস, বারান্দাসহ অন্যান্য সুবিধা রয়েছে। প্রত্যেক সুবিধাভোগীর নামে সরকারি ২ শতাংশ খাস জমি বন্দোবস্ত প্রদানপূর্বক কবুলিয়ত দলিল রেজিস্ট্রেশন, নামজারি সম্পন্নকরণসহ সকল কাজ সম্পন্ন করে শনিবার জমি ও গৃহ প্রদান করা হয়।
এসময় খানসামা উপজেলা পরিষদ কমপ্লেক্স হলরুম প্রান্তে ইউএনও আহমেদ মাহবুব-উল-ইসলাম এর সভাপতিত্বে ভার্চুয়ালী যুক্ত ছিলেন আবুল হাসান মাহমুদ আলী,এমপি এবং আরো উপস্থিত ছিলেন উপজেলা চেয়ারম্যান আবু হাতেম, ওসি শেখ কামাল হোসেন, পিআইও মাজহারুল ইসলাম, উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি (ভারপ্রাপ্ত) মোস্তফা শাহ ও সাধারণ সম্পাদক সফিউল আযম চৌধুরী লায়ন, উপজেলা মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান আফরোজা পারভীন, সরকারী বিভিন্ন দপ্তরের কর্মকর্তাবৃন্দ, সাংবাদিকবৃন্দ, ইউপি চেয়ারম্যানগণ, রাজনৈতিক নেতৃবৃন্দ ও স্বপ্নের পাকা ঘরের মালিকগণ।