January 24, 2022

Jagobahe24.com

সত্যের সাথে আপোসহীন

ঝিনাইদহ কৃষি ব্যাংকে জমির ভুয়া কাগজে ঋণ প্রদাণ, ঘুষ খেয়ে করা হচ্ছে হালনাগাদও!

ঝিনাইদহ কৃষি ব্যাংকে জমির ভুয়া কাগজে ঋণ প্রদাণ, ঘুষ খেয়ে করা হচ্ছে হালনাগাদও!

ঝিনাইদহে এল-টি অনলাইন মার্কেটিংয়ের কোটি কোটি টাকা হাতিয়ে নেবার অভিযোগ

ঝিনাইদহ-
কেউ শিক্ষা অফিসের কর্মকর্তা। আবার কেউ ব্যাংকার। সরকারী চাকুরির পাশাপশি করেন এলটি নামক অনলাইনের এমএলএমের প্রতারণা। চক্রের সদস্যরা অনলাইনে ফাদ পেতে প্রলোভন দেখায়।মাসে টাকা দ্বিগুণ হবে। চক্রের সদস্যরা চড়েন দামী দামী গাড়ী।পরেন দামী পোশাক।চলাফেরা করেন অভিজাত জায়গা কিম্বা হোটেলে।এভাবে প্রথমে-গ্রাহকের বিশ্বাসযোগ্যতা অর্জন করেন।বিশ্বাস অর্জনের পর চক্রটি তাদের পাতা ফাদে অনলাইন এমএলএম সাইটে সদস্য করেন।প্রাথমিক সদস্য হতে ১৪০০০হাজার টাকা হাতিয়ে নেন।তারপর সদস্য সংগ্রহের পর ১ স্টার হবে। পরবর্তীতে ২ স্টার-৩স্টার বানাতে সদস্যদের নিকট হতে হাতিয়ে নেন লক্ষ-লক্ষ টাকা। আবার সদস্য সংগ্রহের মধ্য দিয়ে বিনিয়োগের টাকায় দ্বিগুণ লাভের কথা বলে চক্রটি। প্রতিজন নতুন সদস্য ভর্তি হলে পাবে মোটা অংকের কমিশন।যে সদস্য ১০জন সদস্য ভর্তি করতে পারবেন তিনি স্টার-২০ জন নিয়ে হয় ২স্টার। এভাবে ৩স্টার আবার ১৫০ জন সদস্য জয়েন্ট করলে ৪স্টার।লোভনীয় সব অফারে বেকার যুবকরা ঝুকে পড়ে অনলাইন প্রতারণায় ফাঁদে। মোবাইল নাং শেষ থেকে যোগ হতো ৫৩৫টাকা। লাভের টাকায় পাবে লোভনীয় কোম্পানীর ২২ লক্ষ টাকার গাড়ী আইফোন ও বিদেশ টুর। এসব প্রলোভনের ফাদে পা দিয়ে ভুক্তভোগীরা হাজার হাজার টাকা বিনিয়োগ করেন। অনলাইন ভিত্তিক এমএলএম কোম্পানিতে প্রায় ১ লক্ষ সদস্য। যাদের নিকট হতে হাতিয়ে নেওয়া হয়েছে কয়েক কোটি টাকা। স্থানীয় প্রশাসনের নাকের ডোকায় এভাবে প্রতারণার ফাদ পেতেছে শিক্ষা অফিসের কয়েকজন কর্মকর্তা। কোম্পানীটির চেয়ারম্যান শামীম। তাইজুল ইসলাম তাজ মার্কেটিং ডিরেক্টর। আব্দুর রাজ্জাক উপদেষ্টা। খোরশেদ আলম কোম্পানির এমডি। হামিমুর রহমান হমিম ৪স্টার। আব্দুর রউফ ৪স্টার। মুস্তাক ৩স্টার। যারা প্রতিনিয়ন হাতিয়ে নিচ্ছে ভুয়া কোর্ডের মাধ্যমে রেফারের মাধ্যমে কোটি কোটি টাকা। ঝিনাইদহে মুজিব চত্বরের পাশে একটি এলটি মার্কেটিং শোরুম আছে বলে জানান ভুক্তভোগীরা।