September 22, 2021

Jagobahe24.com

সত্যের সাথে আপোসহীন

বিয়ের দাবিতে খানসামার পূর্ব হাসিমপুরে প্রেমিকের বাড়িতে অনশনে প্রেমিকা, পালালেন প্রেমিক

বিয়ের দাবিতে খানসামার পূর্ব হাসিমপুরে প্রেমিকের বাড়িতে অনশনে প্রেমিকা, পালালেন প্রেমিক

বিয়ের দাবিতে খানসামার পূর্ব হাসিমপুরে প্রেমিকের বাড়িতে অনশনে প্রেমিকা, পালালেন প্রেমিক

এস.এম.রকি, খানসামা (দিনাজপুর) প্রতিনিধি: বিয়ের দাবিতে দিনাজপুরের খানসামা উপজেলার পূর্ব হাসিমপুর গ্রামে প্রেমিকের বাড়িতে ৪ দিন ধরে অনশন করছে প্রেমিকা। অভিযুক্ত প্রেমিক পলাতক রয়েছে।

ঘটনাটি ঘটেছে উপজেলার গোয়ালডিহি ইউনিয়নের পূর্ব হাসিমপুর গ্রামের বানিয়া পাড়ায় পলাতক প্রেমিক ডালটন (২৭) এর বাড়িতে। ডালটন পেশায় একজন মোটরসাইকেল মেকার। তিনি ঐ এলাকার জয়কান্ত রায়ের ছেলে। আর প্রেমিকা মানিকগঞ্জ বাজার এলাকার সুশীল রায়ের মেয়ে পপি রাণী রায় পাকেরহাট বিএম কলেজের দ্বাদশ শ্রেণির ছাত্রী।

বুধবার (৪আগস্ট) দুপুরে গিয়ে দেখা যায়, ডালটনের ঘরের সামনে বারান্দায় বসে আছে প্রেমিকা পপি রাণী রায় (১৯)। আর তার পাশে বসে আছে ডালটনের পরিবারের লোকজন।

প্রেমিকা পপি রায়ের সাথে কথা বলে জানা যায়, মানিকগঞ্জ বাজারে ডালটন রায়ের মোটর সাইকেল মেকারের দোকান থাকায় তার সাথে পরিচয়ের পর এক পর্যায়ে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে উঠে। এরপর তারা মোবাইল ও এসএমএসে নিয়মিত কথা বলতেন। এছাড়াও বিভিন্ন জায়গায় ঘুরতেও গিয়েছিলেন। তিনি বারবার আমাকে বিয়ে করে প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলেন। কিন্তু গত ২ মাস ধরে প্রেমের সম্পর্কটি জানাজানি হলে ফোনে যোগাযোগে সাড়া না পাওয়ায় বাধ্য হয়ে তার বাড়িতে এসেছি। তাকে বিয়ে না করা পর্যন্ত এ বাড়ি থেকে কখনো বের হব না। এক প্রশ্নের জবাবে প্রেমিকা পপি রায় আরও বলেন, প্রেমিক ডালটনের সাথে কখনো তার শারীরিক সম্পর্ক হয় নাই।

তবে ডালটনের বাবা জয়কান্ত রায় বলেন, এ ঘটনার দিনে আমার ছেলে ডালটন প্রেমের বিষয়টি অস্বীকার করে বিয়ে করবে না মর্মে লাপাত্তা হয়ে যায়। এলাকাবাসীর অনুরোধে মেয়েটাকে বাড়ির ভিতরে রাখা হয়েছে।

এ প্রসঙ্গে খানসামা থানার অফিসার ইনচার্জ শেখ কামাল হোসেন বলেন, এঘটনায় এখন লিখিত অভিযোগ পাওয়া যায় নি। লিখিত অভিযোগ পেলে বিষয়টি গুরুত্ব সহকারে খতিয়ে দেখে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।